বুধবার, ১৩-নভেম্বর ২০১৯, ০২:২৭ অপরাহ্ন
  • অর্থনীতি
  • »
  • পাইকারি ৬০ টাকার বেশি দামে পেঁয়াজ বিক্রি হলেই জেল

পাইকারি ৬০ টাকার বেশি দামে পেঁয়াজ বিক্রি হলেই জেল

shershanews24.com

প্রকাশ : ০৪ নভেম্বর, ২০১৯ ০৮:১৫ অপরাহ্ন

শীর্ষনিউজ, চট্টগ্রাম : পেঁয়াজের লাগামহীন মূল্যবৃদ্ধি ঠেকাতে চট্টগ্রামের খাতুনগঞ্জে অভিযান চালিয়েছে প্রশাসন। অভিযানে মাত্রাতিরিক্ত দামে মিয়ানমার থেকে আমদানি করা পেঁয়াজ বিক্রি করায় দুটি প্রতিষ্ঠানকে জরিমানাও করা হয়েছে। এ সময় জানানো হয়, মিয়ানমারের পেঁয়াজ ৫৫-৬০ টাকার বেশি দামে বিক্রি করলে জেল-জরিমানা করা হবে।

সোমবার দুপুরে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের উপসচিব মো. সেলিম হোসেনের নেতৃত্বে এ অভিযান পরিচালনা করা হয়। অভিযানে জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তৌহিদুল ইসলাম, জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের উপপরিচালক শাহিদা সুলতানা, মুহাম্মদ হাসানুজ্জামান এবং র্যাব ও পুলিশ সদস্যরা অংশ নেন।

অভিযানকালে জেলার নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তৌহিদুল ইসলাম বলেন, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিবের নেতৃত্বে আমরা দাউদকান্দিগামী একটি ট্রাকের চালান চেক করে দেখতে পাই পেঁয়াজ ৯০ টাকা করে বিক্রি করা হয়েছে। তাই আড়তদার গ্রামীণ বাণিজ্যালয়ের বলাই কুমার পোদ্দারকে জরিমানা করা হয়েছে। এছাড়া, অতিরিক্ত দামে পেঁয়াজ বিক্রি করায় রিয়াজ উদ্দিন বাজারের রুহুল আমিন সওদাগরকেও জরিমানা করা হয়।

তিনি বলেন, আমদানিকারক পর্যায়ে কেউ জোর করে অধিক দাম চাপিয়ে দিলে জেলা প্রশাসনকে জানাতে বলা হয়েছে। পাইকারিতে মিয়ানমারের পেঁয়াজ ৫৫-৬০ টাকার বেশি হলে জেল-জরিমানা করা হবে এবং খুচরা পর্যায়ে ৬৫-৭০ টাকার দরে বিক্রির নির্দেশনা দেন তিনি।

এ বিষয়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের উপসচিব মো. সেলিম হোসেন জানান, মিয়ানমার থেকে ৪২ টাকা দরে আমদানি করা পেঁয়াজ পরিবহন খরচ, শ্রমিক খরচ, মুনাফা ও বিবিধ সব খরচ বিবেচনায় নিয়ে লাভসহ ৬০ টাকার বেশি পাইকারি মূল্য হতে পারে না। কিন্তু আড়তে ৯০-১১০ টাকা দামে বিক্রি হচ্ছে। যা সম্পূর্ণ অযৌক্তিক।

তিনি আরও বলেন, বাজারে অনুসন্ধান চালিয়ে ১২-১৫ জনের একটি সিন্ডিকেটের নাম উঠে এসেছে। তাদের তথ্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে দেয়া হয়েছে।

এর আগে গত রোববার দোকানে টাঙানো মূল্যতালিকার চেয়ে বেশি দামে পেঁয়াজ বিক্রির অপরাধে চট্টগ্রামের পাইকারি বাজার খাতুনগঞ্জের চারটি দোকানকে ১ লাখ ১০ টাকা জরিমানা করে ভ্রাম্যমাণ আদালত।
শীর্ষনিউজ/এ